অনলাইনেই মিলবে জাতীয় পরিচয় পত্র

2

এখন পর্যন্ত যারা ভোটার নিবন্ধন হয়েছেন কিন্তু ভোটার আইডি কার্ড হাতে পাননি তাদের ক্ষেত্রে অত্যন্ত আনন্দের সংবাদ হলো অনলাইনেই মিলবে জাতীয় পরিচয় পত্র ।


এনআইডি অনুবিভাগ এর মহাপরিচালক “ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাইদুল ইসলাম”  এক ভিডিও কনফারেন্সে জানিয়েছেন এখন থেকে অনলাইনেই মিলবে জাতীয় পরিচয় পত্র ।  গত ২৭ এপ্রিল ২০২০ সালে তিনি এ তথ্য প্রদান করেন।  তবে ২০২২ সালে এই তথ্যটি নতুন কিছু নয়,  যারা এখন পর্যন্ত আইডি কার্ড পাননি তাদের জন্য এই তথ্যটি অনেক আনন্দের।

তার মানে যারা এখন পর্যন্ত ভোটার নিবন্ধন করেছেন কিন্তু জাতীয় পরিচয় পত্র পাননি তারা খুব সহজেই অনলাইন থেকে nidw ওয়েবসাইটে গিয়ে ভোটার আইডি কার্ড অনলাইন কপি ডাউনলোড করতে পারবেন। এছাড়াও নতুন ভোটার হাওয়া, হারানো কার্ডের ডুপ্লিকেট সংগ্রহ, সংশোধনসহ অন্যান্য সুবিধা পাওয়া যাবে জাতীয় পরিচয় পত্র অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে।

এছাড়াও গত ভোটার নিবন্ধন কার্যক্রমে যারা অংশগ্রহণ করেছে কিন্তু যাদের এসএমএস আসেনি , যদি তাদের বয়স 18 পূর্ণ হয় তারা চাইলে খুব সহজেই একটি এসএমএসের মাধ্যমে তাদের ফরম নাম্বার দিয়ে এনআইডি নাম্বার বের করতে পারবেন।

গুরুত্বপূর্ণ তথ্যঃ ভোটার তালিকা হালনাগাদে অংশগ্রহণ করেছে কিন্তু যাদের বয়স 18 পরিপূর্ণ হয়নি তারা ফরম নম্বর দিয়ে অনলাইন থেকে আইডি কার্ড সংগ্রহ করতে পারবেন না। আপনার বয়স 18 হয়েছে কিনা জানতে ব্যবহার করুন বয়স ক্যালকুলেটর

জাতীয় পরিচয় পত্র সংগ্রহ করার নিয়ম

জাতীয় পরিচয় পত্র সংগ্রহ করার জন্য ভিজিট করতে হবে https://services.nidw.gov.bd/nid-pub/  ওয়েবসাইটে। ওয়েব সাইটে ভোটার ফরম নাম্বার এবং জন্মতারিখ দিয়ে একটি একাউন্ট রেজিস্টার করতে হবে। এরপর প্রোফাইল লগইন করে ডাউনলোড বাটনে ক্লিক করে জাতীয় পরিচয় পত্র প্রিন্ট কপি সংগ্রহ করা যাবে।

বিস্তারিত কাজটি আপনি করতে পারবেন মাত্র কয়েকটি ধাপে

ধাপ ১ঃ NIDW ওয়েব সাইটে প্রবেশ

জাতীয় পরিচয়পত্র অনলাইন থেকে ডাউনলোড করার জন্য একটিমাত্র সাইট রয়েছে সেটি হল https://services.nidw.gov.bd/nid-pub/  আমাদের প্রথমে এই লিঙ্কে প্রবেশ করতে হবে। এবং লিঙ্কে প্রবেশ করার পর নিচের মত একটি ইন্টারফেস দেখা যাবে। এখান থেকে রেজিস্টার বাটনে ক্লিক করতে হবে।

ভোটার আইডি কার্ড বের করা

ধাপ ২ঃ NIDW সাইটে একাউন্ট রেজিস্ট্রেশন

এই পেইজে আসার পরে আমাদের হাতে থাকা ভোটার ফরম (স্লিপ) নাম্বার অথবা যারা এসএমএসে NID Number পেয়েছেন সেই এনআইডি নাম্বার এবং আমাদের জন্ম তারিখটি উল্লেখ করতে হবে। এবং ক্যাপচা পুরন করতে হবে।  এরপরে সাবমিট ক্লিক করতে হবে।

ফরম নাম্বার দিয়ে আইডি কার্ড বের করা

কিভাবে ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড করার জন্য উক্ত সাইটে রেজিস্ট্রেশন করবেন এই জন্য আমাদের বিস্তারিত একটি আর্টিকেল রয়েছে। জানুন ভোটার আইডি কার্ড রেজিস্ট্রেশন করার নিয়ম

ধাপ ৩ঃ ভোটার আইডি কার্ড ডাউনলোড

সফলভাবে একটি একাউন্ট রেজিস্টার করার পরে আপনার প্রোফাইল লগইন করতে হবে। প্রোফাইলে লগইন করার পর আপনার বিস্তারিত তথ্য যেমন আপনার ছবি আপনার স্থায়ী ঠিকানা এবং আপনার আইডি কার্ড নাম্বার দেখতে পাবেন।

ভোটার আইডি কার্ড অনলাইন কপি ডাউনলোড

ডান পাশে কয়েকটি অপশন দেখতে পাবেন যেমন , প্রোফাইল , রি ইস্যু, । একদম সব থেকে নিচের ডাউনলোড নামের একটি লেখা দেখতে পাবেন সেটিতে ক্লিক করতে হবে। ডাউনলোড বাটনে ক্লিক করলে আপনাদের ভোটার আইডি কার্ড প্রিন্ট কপি পিডিএফ ফাইল ডাউনলোড হয়ে যাবে।

মোবাইলে SMS এর মাধ্যমে জাতীয় পরিচয় পত্র নম্বর সংগ্রহ

আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে টাইপ করুন nid <space> form number <space>dd-mm-yyy. এবং এসএমএস পাঠাতে হবে 105 নাম্বারে। ফিরতি এসএমএসে জাতীয় পরিচয় পত্র নম্বর পাওয়া যাবে।

উদাহরনঃ nid 12xxxxxxx 01-12-2001

এখানে dd-mm-yy আপনার জন্ম তারিখ কে বোঝানো হয়েছে অর্থাৎ প্রথমে জন্ম তারিখ এরপরে মাস এরপরে বছর। এভাবে টাইপ করে আপনাকে এসএমএস সেন্ড করতে হবে।

জাতীয় পরিচয় পত্র সম্পর্কিত প্রশ্ন গুলো

ফরম নাম্বার হারিয়ে গেলে করণীয় কি?

ভোটার নিবন্ধন হওয়ার সময় প্রদত্ত ভোটার স্লিপ যদি হারিয়ে যায় তাহলে নিকটস্থ থানায় একটি জিডি করুন এবং জিডির কপি নিয়ে নির্বাচন অফিসে যোগাযোগ করুন।

বিদেশে চলে গেলে জাতীয় পরিচয় পত্র কি অন্য কেউ তুলতে পারবে

হ্যাঁ অবশ্যই তুলতে পারবে। এজন্য যার ভোটার আইডি কার্ড তুলবেন তার স্বীকার পত্র এবং তার রেখে যাওয়া ভোটার স্লিপ থাকতে হবে।

জাতীয় পরিচয়পত্র অনলাইন কপি সব কাজে ব্যবহার করা যাবে?

হ্যাঁ আপনি এই জাতীয় পরিচয়পত্র অনলাইন কপি প্রিন্ট করে সেটি সমস্ত কাজে ব্যবহার করতে পারবেন।

ভোটার লিস্টে নাম আসছে কিন্তু এসএমএস আসেনি/ আইডি কার্ড নেই এ ক্ষেত্রে করণীয় কি?

আপনার এলাকায় নির্বাচনের সময় যদি ভোটার লিস্ট আপনার নাম থাকে তাহলে আপনি অনায়াসে ভোট দিতে পারবেন ভোট দেয়ার ক্ষেত্রে ভোটার আইডি কার্ড জরুরী নয়। তবে ভোট যদি ইভিএম পদ্ধতিতে হয় তাহলে অবশ্যই আপনাকে স্মার্টকার্ড সাথে নিয়ে যেতে হবে।

ভোটার লিস্টে নাম আসার পরও যদি আপনার এসএমএস না আসে বা ভোটার আইডি কার্ড অনলাইন থেকে ডাউনলোড করতে না পারেন সে ক্ষেত্রে নির্বাচন কমিশনের হটলাইন ১০৫ এ কল করুন বা নিকটস্থ নির্বাচন কমিশন অফিসে যোগাযোগ করুন

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.